আন্তর্জাতিক বিষয়াবলি

কালানুক্রমিক ঘটনাবলি

০১.০৩.২০২২

♦ যুদ্ধ বন্ধে বেলারুশ সীমান্তে রাশিয়া-ইউক্রেন বৈঠক।

♦ বিশ্বের ১৮৯টি দেশের মধ্যে ১৭৩টি দেশের “ILO Convention-138” এ স্বাক্ষর।

♦ রাশিয়ার রপ্তানিকৃত মোট গ্যাসের ৭০% রপ্তানি হয় ইউরোপে।

♦ ইউক্রেন হামলার জেরে রাশিয়া বিশ্বের ৩৬ দেশের ফ্লাইট নিষিদ্ধ করেছে।

♦ জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে বিশ্বে ৩৩০ থেকে ৩৫০ কোটি মানুষ উচ্চ ঝুঁকিতে (IPCC)।

♦ FAO এর মহাপরিচালক কু ডংগিউ।

♦ ২০২০ সাল পর্যন্ত বীমার বৈশ্বিক বাজার ছিল ৩৪০৫ বিলিয়ন ডলার।

০২.০৩.২০২২

♦ অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন।

♦ ইউক্রেন কে ইইউর সদস্য করার সম্মতি ইউরোপীয় পার্লামেন্টের। 

০৩.০৩.২০২২

♦ জাতিসংঘের মহীসোপান সীমানা সংক্রান্ত কমিশন হলো- কমিশন অন দ্য লিমিটস অব দ্য     কন্টিনেন্টাল সেলফস (CLCS).

♦ রাশিয়ার অর্থনীতির আকার ১.৪৮ ট্রিলিয়ন ডলার। যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনীতির আকার ২০.৯৫ ট্রিলিয়ন ডলার।

♦ বৈশ্বিক উৎপাদনে রাশিয়ার অংশ মাত্র ১.৭%।

♦ হংকং এর প্রেসিডেন্ট উইলিয়াম লাই।

♦ রাশিয়ার বিরুদ্ধে লড়াই করতে ইউক্রেনের ৮০ হাজার ইউক্রেনীয় নাগরিক দেশে প্রত্যাবর্তন করেছেন।

♦ তেলের দাম ব্যারেল প্রতি ১১৩ ডলারে পৌছেছে। 

০৪.০৩.২০২২

♦ বায়ু দূষণে প্রতি বছর ৭০ লাখ মানুষের মৃত্যু হয়।

♦ ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যে খোলা জায়গায় মাংস বিক্রি নিষিদ্ধ।

♦ রাশিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধাপরাধ তদন্তে ৩৯টি দেশের আহবান।

♦ গভীর মন্দার মুখে রাশিয়ার জিডিপির সংকোচন হবে ৭%।

♦ নিউজিল্যান্ডে মেয়েদের দ্বাদশ ওয়ানডে বিশ্বকাপ শুরু।

০৫.০৩.২০২২

♦ ইউরোপের বৃহত্তম পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র ‘জাপোরিঝিয়া’ ইউক্রেনে অবস্থিত।

♦ আন্তর্জাতিক পরমাণু শক্তি সংস্থা (IAEA), যার সদর দপ্তর অস্ট্রিয়ার ভিয়েনায়।

♦ তদানীন্তন সোভিয়েত ইউনিয়নের চেরনোবিল পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রে ভয়াবহ বিপর্যয় ঘটে ২৬ এপ্রিল, ১৯৮৬ সালে। চেরনোবিল বর্তমানে ইউক্রেনের অন্তর্ভুক্ত।

♦ পাকিস্তানের ‘পাখতুনখাওয়া’ প্রদেশের রাজধানী পেশোয়ার।

♦ ‘ডন’ পাকিস্তানের সংবাদপত্র।

♦ ‘দ্য সোসাইটি ফর ওয়ার্ল্ড ওয়াইড ইন্টারব্যাংক ফিন্যান্সিয়াল টেলিকমিউনিকেশন’ বা সুইফটের যাত্রা শুরু ১৯৭৩   সালে।

♦ সুইফটের সদরদপ্তর ব্রাসেলসে অবস্থিত।

♦ চীনের মুদ্রা → ইউয়ান বা রেনমিনবি।

০৬.০৩.২০২২

♦ বিশ্বের শীর্ষ স্থানীয় জাহাজ পরিচালনাকারী প্রতিষ্ঠান সুইজারল্যান্ড ভিত্তিক মেডিটেরিয়েন শিপিং কোম্পানি (MSC)। অন্যান্য শীর্ষ কোম্পানি হল- ডেনমার্ক ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান মার্সক (MAERSK), জার্মানভিত্তিক প্রতিষ্ঠান হ্যাপাগলইড (Hapag-Lloyd), সিঙ্গাপুর জাপান ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান ওয়ানলাইন (One-Line)।

♦ রাশিয়ার দৈনিক তেল উৎপাদনের পরিমাণ ১১ মিলিয়ন ব্যারেল।

♦ টাইম ম্যাগাজিনের বর্ষসেরা নারী তালিকায় স্থান পেয়েছেন আফগানিস্তানের নারী সাংবাদিক জাহরা জয়া।

♦ স্টোনহেঞ্জ পাথর দ্বারা মাস দিনের হিসাব করা হত।

০৭.০৩.২০২২

♦ ইউক্রেনের গুরুত্বপূর্ণ বন্দর নগরী খেরসন।

♦ রাশিয়ার ইউক্রেন হামলার জেরে প্রবাসী সরকার গঠনের প্রস্তুতি পশ্চিমাদের।

০৮.০৩.২০২২

♦ ইউক্রেনের সুমিসহ বিভিন্ন শহরে আটক ভারতীয়দের নিরাপদে দেশে ফেরত আনা নিয়ে সে দেশের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমি জেলেনস্কির সাথে ০৮-০৩-২২ তারিখে কথা বলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

♦ যুক্তরাষ্ট্রের সৌদি আরব থেকে তেল আমদানীর সিদ্ধান্ত।

♦ ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভের দিকে সর্বাত্মক হামলার প্রস্তুতি নিয়ে এগিয়ে চলছে রুশ সেনাবহর। যুদ্ধবন্ধে রাশিয়া ২টি শর্তারোপ করেছে। যথা:

(১) ক্রিমিয়াকে রাশিয়ার অংশ এবং দোনেৎস্ক ও লুহানস্ক অঞ্চলকে স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বীকৃতি দিতে হবে।

(২) ন্যাটোর মতো কোন জোটে যাবে না এমন ঘোষণা দিয়ে ইউক্রেনের আইন সংশোধন করতে হবে।

♦ আজ বিশ্ব নারী দিবস।

♦ গম রপ্তানিতে শীর্ষ রাশিয়া, ইউক্রেন চতুর্থ।

♦ সাস্থ্য ও সামাজিক সেবাখাতের বৈশ্বিক জনবলের ৭০% নারী।

০৯.০৩.২০২২

♦ ইউক্রেনের ২য় বৃহত্তম শহর খারকিভ।

♦ রাশিয়ার বিরুদ্ধে ১৩ দিনে ৩ হাজার নিষেধাজ্ঞা।

♦ কক্ষপথে সামরিক উপগ্রহের সফল উৎখেপন সম্পন্ন করেছে ইরান।

♦ চেক প্রজাতন্ত্রের সর্বোচ্চ রাষ্ট্রীয় সম্মান পাচ্ছেন ভলোদেমির জেলেনস্কি।

১০.০৩.২০২২

♦ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি চাইছেন তাঁর দ্বিতীয় দফার মেয়াদ উত্তীর্ণ হওয়ার আগেই বাংলাদেশ, ভারত ও নেপালের মধ্যে যাত্রী ও পণ্য পরিবহণকারী মোটরযান চলাচল (BBIN) বাস্তবায়ন করতে।

♦ ইরায়েলের প্রেসিডেন্ট আইজ্যাক হারজর্গ তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ানের   আমন্ত্রণে আঙ্কারা সফরে গেছেন। ২০০৮ সালের পর ইসরায়েলের কোন শীর্ষ সরকারি কর্মকর্তার এটাই প্রথম তুরস্ক সফর।

♦ জ্বালানির ওপর পশ্চিমা বিশ্বের নিষেধাজ্ঞার প্রতিক্রিয়ায় রাশিয়ার উপ-প্রধানমন্ত্রী আলেকসান্দর নোভাক বলেছেন, রাশিয়ার তেল প্রত্যাখ্যান করলে তা বিশ্ববাজারের জন্য বিপর্যয়কর পরিণতি ডেকে আনবে।

♦ বর্তমানে বিশ্বে তৃতীয় বৃহত্তম তেল উৎপাদনকারী দেশ রাশিয়া।

১১.০৩.২০২২

♦ বিশ্বের বৃহত্তম হাইব্রিড বিদ্যুৎ প্রকল্প হল থাইল্যান্ড এর উবন রাতচাথানির সিরিন্ধর্ন বাঁধ প্রকল্প।

♦ দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হলেন বিরোধী দলীয় প্রার্থী ইউন সুক-ইওল।

♦ রুশ জ্বালানিতে যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞা বিল পাশ।

♦ রাশিয়ার উপ-প্রধানমন্ত্রী আলেকজেন্ডার নোভাক।

১২.০৩.২০২২

♦ “ওয়ান হেলথ ধারণা” কে কৃষি ক্ষেত্রে বাস্তবায়নের অঙ্গীকার করা হয় FAO এর ৩৬তম সম্মেলনে।

♦ ইউক্রেনে ১৬ হাজার বিদেশী যোদ্ধা পাঠাচ্ছেন পুতিন।       

১৩.০৩.২০২২

♦ ভারতের পাঞ্জাবে বিধানসভা নির্বাচনে আম আদমি পার্টি বিজয়ী।

♦ ন্যাটো দেশগুলোকে রক্ষায় যুক্তরাষ্ট্রের রাশিয়া সীমান্তে ১২ হাজার সেনা মোতায়েন।

♦ সৌদি আরবে একদিনে ৮১ জনের মৃত্যুদন্ড কার্যকর।

♦ পাকিস্তানের চীনের জে-১০সি যুদ্ধ বিমান ক্রয়।

১৪.০৩.২০২২

♦ ইউক্রেনের রাজধানী কিয়েভে গোলাগুলিতে মার্কিন সাংবাদিক ব্রেন্ট রেনড নিহত।

♦ FAO এর মহাপরিচালক কু ডং ইউ।

♦ পাকিস্তানকে হারিয়ে বিশ্বকাপে বাংলাদেশের মেয়েদের ঐতিহাসিক জয়।

♦ ফিফা স্বীকৃত ম্যাচে সবচেয়ে বেশি গোলের রেকর্ড ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর (৮০৬টি)। অবশ্য গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে সবচেয়ে বেশি গোলের স্বীকৃতি পেলের (১২৭৯টি)।

১৫.০৩.২০২২

♦ আজ বিশ্ব ভোক্তা অধিকার দিবস।

♦ কলম্বিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হয়েছেন সাবেক গেরিলা যোদ্ধা গুস্তাভো পেত্রো।

♦ কারাগারে বিয়ে করছেন উইকিলিকসের প্রতিষ্ঠাতা জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ।

♦ যুদ্ধের কারণে ইউক্রেনের ২০-৩০ শতাংশ জমি অনাবাদী থাকার আশঙ্কা।

♦ রাশিয়া ও ইউক্রেন যৌথভাবে বিশ্বের এক তৃতীয়াংশ খাদ্যের যোগান দেয়।

♦ মিয়ানমারের স্বশস্ত্র গোষ্ঠী আরসা’র প্রধান আতাউল্লাহ আবু আম্মার জুনুনী।

১৫.০৩.২০২২

♦ যুদ্ধের মধ্যে কিয়েভ সফরে গেছেন পোল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী ম্যাতেউস মোরাউইকি, চেক প্রজাতন্ত্রের প্রধানমন্ত্রী পেত্র ফিয়ালা এবং স্লোভেনিয়ার প্রধানমন্ত্রী জানেজ জানসা।

♦ প্রতি সেকেন্ডে শরণার্থী হচ্ছে একটি শিশু- জাতিসংঘ।

♦ রাশিয়ার হামলায় ইউক্রেনের ক্ষতি ৫০০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার।

♦ রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন কে যুদ্ধাপরাধী হিসেবে উল্লেখ করে মার্কিন সিনেটে প্রস্তাব পাশ।

২০.০৩.২০২২

♦ আলবেনিয়ার রাজধানী তিরানা।

♦ ইউক্রেনে রাশিয়ার কিনঝাল নামক হাইপারসনিক মিশাইল হামলা।

♦ সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল আসাদের আরব আমিরাত সফর।

♦ কিরগিজস্তানের ঐতিহ্যবাহী দৌড় প্রতিযোগিতার নাম গোকবুরু।

♦ চীনের RKA (Relativistic Clistron Amplifier) নামক লেজার অস্ত্র তৈরি।

♦ ষাটের দশকের অন্যতম সংগঠক এবং জাতীয় ক্রীড়া পুরস্কার প্রাপ্ত সংগঠক হামিদা বেগমের   ইন্তেকাল।

♦ এশিয়া কাপ ওয়ার্ল্ড র‌্যাংকিং আর্চারির স্টেজ ওয়ান টুর্নামেন্টে বাংলাদেশের মেয়েদের সোনা জয়।

২১.০৩.২০২২

♦ ভারতের মনিপুর রাজ্যের মূখ্যমন্ত্রী হলেন বিজেপির এন বীরেন সিং (২য় বার)

♦ সবচেয়ে দীর্ঘতম স্প্যানের ঝুলন্ত সেতু উুদ্বোধন হল তুরস্কে দার্দনেলিস প্রণালীর উপর। এশিয়া থেকে ইউরোপে যেতে সময় লাগবে ৬ মিনিট।

২৩.০৩.২০২২

♦ বিশ্ব আবহাওয়া দিবস আজ।

♦ চীনের জিনজিয়াং প্রদেশে মুসলমান উইঘুর সম্প্রদায়ের উপর মনবতাবিরোধী অপরাধের সম্পৃক্ত চীনা      কর্মকর্তাদের উপর যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞা আরোপ (গতকাল)।

♦ নোবেল পুরস্কার নিলামে তুলতে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন দিমিত্রি মুরাতভ।

♦ স্প্যানিশ প্রতিবেদন থেকে মহামারী সিরিজ বানাবেন পরিচালক অ্যালেক্স পিনা।

২৫.০৩.২০২২

♦ “জুয়েল অব দ্যা ক্রাউন” বলা হয় শ্রীলঙ্কাকে।

♦ ইউরোপে ন্যাটোর পূর্বাঙ্গলীয় বহরে ৪০ হাজার সেনা পাঠানোর পরিকল্পনা।

♦ প্রথম মার্কিন নারী পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেডেলিন অল ব্রাইট।

♦ রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধে রাশিয়ার জীবন যাত্রার ব্যয় ১৪% বৃদ্ধি।

♦ ঢাকায় অনুষ্ঠিত ৫ জাতির কাবাডি টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন স্বাগতিক বাংলাদেশ।

♦ সবচেয়ে কম ইনিংসে ৮০০০ রানের মাইলফলক স্পর্শ করেন অস্ট্রেলিয়ার স্টিভ স্মিথ।

২৯.০৩.২০২২

৯৪তম অস্কারের আদ্যোপান্ত-

সেরা ছবি: কোডা।

সেরা পরিচালক: জেন ক্যাম্পিয়ন, দ্য পাওয়ার অব দ্য ডগ।

সেরা অভিনেতা: উইল স্মিথ, কিং রিচার্ড।

সেরা অভিনেত্রী: জেসিকা চ্যাস্টেন, দ্য আইজ অব টেমি ফে।

সেরা পার্শ্বচরিত্রের অভিনেতা: ট্রয় কটসর, কোডা।

সেরা পার্শ্বচরিত্রের অভিনেত্রী: আরিয়ানা ডিবোস, ওয়েস্ট সাইড স্টোরি সাউন্ড ডুন।

সেরা তথ্যচিত্র (শর্ট সাবজেক্ট): দ্য কুইন অব বাস্কেটবল।

সেরা অ্যানিমেটেড (স্বল্পদৈর্ঘ্য): দ্য উইল্ডশিল্ড ওয়াইপার।

সেরা লাইভ অ্যাকশন শর্টফিল্ম: দ্য লং গুডবাই।

সেরা মৌলিক আবহসংগীত: হ্যানস জিমার, ডুন।

সেরা সম্পাদনা: জো ওয়াকার, ডুন।

সেরা প্রোডাকশন ডিজাইন: ডুন।

সেরা মেকআপ অ্যান্ড হেয়ারস্টাইল: দ্য আইজ অব টেমি ফে।

সেরা কস্টিউম ডিজাইন: জেনি বেভান, ক্রুয়েলা।  

সেরা সিনেমাটোগ্রাফি: গ্রেগ ফ্রাসার, ডুন ভিজ্যুয়াল ইফেক্টস ডুন।

সেরা অ্যানিমেটেড (পূর্ণদৈর্ঘ্য): এনকান্টো।

সেরা আন্তর্জাতিক ছবি (পূর্ণদৈর্ঘ্য): ড্রাইভ মাই কার।

সেরা তথ্যচিত্র: সামার অব সোল।

সেরা মৌলিক গান: বিলি এইলিশ ও ফিনেস ও’কনেল, নো টাইম টু ডাই।

সেরা অনুপাণিত চিত্রনাট্য: কোডা।

সেরা মৌলিক চিত্রনাট্য: বেলফ্যাস্ট।

♦ তিনযুগ পর ২০২২ কাতার বিশ্বকাপে সুযোগ পেল কানাডা।

♦ ICC ODI Ranking এর সেরা ব্যাটার বাবর আজম।

আলোচিত বিশ্ব

দক্ষিণ কোরিয়ার ১৩তম প্রেসিডেন্ট ইউন সুক-ইওল

৯ মার্চ ২০২২ দক্ষিণ কোরিয়ায় প্রেসিডেন্ট নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। মোট ১৪ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। নির্বাচনে মূল প্রতিদ্বন্দ্বিতা হয় উদারপন্থী ও ক্ষমতাসীন দল ডেমোক্র্যাটিক পার্টির লি জায়ে মিউং এবং রক্ষণশীল দল পিপল পাওয়ার পার্টির ইউন সুক-ইওলের মধ্যে। প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ নির্বাচনে ইউন সুক-ইওল ৪৮.৫৬%। ভোট পেয়ে ১৩তম প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন। অন্যদিকে লি জায়ে মিউং পান ৪৭.৮৩% ভোট। ১০ মে ২০২২ ইউন সুক-ইওল প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণ করবেন।

১৫ মার্চ আন্তর্জাতিক ইসলামভীতি প্রতিরোধ দিবস

ইসলামভীতি প্রতিরোধে এখন থেকে ১৫ মার্চ ‘আন্তর্জাতিক ইসলামভীতি প্রতিরোধ দিবস’ পালিত হবে। ইসলামী সহযোগিতা সংস্থার (OIC) পক্ষে পাকিস্তানের উত্থাপিত একটি প্রস্তাব (রেজল্যুশন) ১৫ মার্চ ২০২২ জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদে সর্বসম্মতভাবে গৃহীত হয়। OIC’র ৫৭ সদস্যের পাশাপাশি চীন, রাশিয়াসহ আরও ৮টি দেশ প্রস্তাবটি স্পনসর করে। তবে এ প্রস্তাবে আপত্তি করে ভারত, ফ্রান্স এবং ইউরোপীয় ইউনিয়ন।

রিপোর্ট-সমীক্ষা

বিশ্ব ভাষাচিত্র

প্রকাশ: ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২২, সংস্করণ: ২৫তম,

প্রকাশক: Ethnologue
বিশ্বে মোট ভাষার সংখ্যা ৭,১৫১টি।
সর্বাধিক ভাষার শীর্ষ ৫টি দেশ: ১. পাপুয়া নিউগিনি (৮৪০), ২. ইন্দোনেশিয়া (৭১৫), ৩. নাইজেরিয়া (৫২৭), ৪. ভারত (৪৫৬) ও ৫. যুক্তরাষ্ট্র (৩৩৭)।

অবস্থান

ব্যবহৃত শীর্ষ ৬ ভাষা

মাতৃভাষার সংখ্যা অনুসারে শীর্ষ ৬ ভাষা

নাম

সংখ্যা (মিলিয়ন)

নাম

সংখ্যা (মিলিয়ন)

ইংরেজি

১,৩৪৮

মান্দারিন

৯২০

মান্দারিন

১,১২০

স্প্যানিশ

৪৭৫

হিন্দি

৬০০

ইংরেজি

৩৭৩

স্প্যানিশ

৫৪৩

হিন্দি

৩৪৪

আরবি

২৭৪

বাংলা

২২৮

বাংলা

২৬৮

পর্তুগিজ

২২১

[তথ্যসূত্র: Ethnologue & visualcapitalist.com]

বৈশ্বিক অস্ত্র আমদানি-রপ্তানি চিত্র

প্রকাশ

১৪ মার্চ ২০২২

দেশ

Stockholm International Peace Research Institute (SIPRI); সুইডেন।

অন্তর্ভুক্ত দেশ

রপ্তানিতে ২৫টি এবং আমদানিতে ৪০টি।

প্রতিবেদনের শিরোনাম

Trends in International Arms Transfers, 2021

অস্ত্র রপ্তানিতে শীর্ষ দেশ

যুক্তরাষ্ট্র (৩৯%)

অস্ত্র আমদানিতে শীর্ষ দেশ

ভারত (১১%)

আমদানিতে বাংলাদেশের অবস্থান (%)

বাংলাদেশ ২৪তম (১.০)

নারী, ব্যবস্থা ও আইন

প্রকাশ

১ মার্চ ২০২২

প্রকাশক

বিশ্বব্যাংক

সূচকের শিরোনাম

Women, Business and the Law 2022

অন্তর্ভুক্ত দেশ

১৯০টি

সর্বনিম্ন দেশ

ফিলিস্তিন; স্কোর ২৬.৩

বাংলাদেশের অবস্থান

১৭৪তম।

সূচক অনুযায়ী-

১০০ স্কোর পেয়ে অর্থনৈতিক কর্মকান্ডে নারী-পুরুষের আইনি সুরক্ষায় সমান ১২টি দেশ

১. বেলজিয়াম, ২. কানাডা, ৩. ডেনমার্ক, ৪. ফ্রান্স, ৫. গ্রিস, ৬. আয়ারল্যান্ড, ৭. লাটভিয়া, ৮. লুক্সেমবার্গ, ৯. পর্তুগাল, ১০. স্পেন, ১১. সুইডেন ও ১২. আইসল্যান্ড।

বৈশ্বিক সন্ত্রাস সূচক

প্রকাশ

২ মার্চ ২০২২

প্রকাশক

অস্ট্রেলিয়ার সিডনিভিত্তিক Institute for Economics and Peace (IEP)

সূচকের শিরোনাম

Global Terrorism Index 2022

শীর্ষ দেশ

আফগানিস্তান।

বাংলাদেশের অবস্থান

বাংলাদেশ (৪০)

বৈশ্বিক খাদ্য নিরাপত্তা সূচক

প্রকাশ

ফেব্রুয়ারি ২০২২

প্রকাশক

The Economist Intelligence Unit (EIU)

অন্তর্ভুক্ত দেশ

১১৩টি

সূচকের শিরোনাম

Global Food Security Index 2021

শীর্ষ দেশ

আয়ারল্যান্ড

সর্বনিম্ন দেশ

বুরুন্ডি

বাংলাদেশের অবস্থান

বাংলাদেশ (৮৪)

বিশ্ব সুখ প্রতিবেদন

প্রকাশ

১৮ মার্চ ২০২২

প্রকাশক

United Nations Sustainable Development Solutions Network (SDSN)

অন্তর্ভুক্ত দেশ

১৪৬টি

প্রতিবেদনের শিরোনাম

World Happiness Report 2022

সবচেয়ে সুখী দেশ

ফিনল্যান্ড

বাংলাদেশের অবস্থান

বাংলাদেশ(৯৪)

 

বৈশ্বিক বায়ুমান প্রতিবেদন

প্রকাশ

২২ মার্চ ২০২২

প্রকাশক

সুইজারল্যান্ড ভিত্তিক সংস্থা IQAir

অন্তর্ভুক্ত দেশ ও অঞ্চল

১১৭টি

প্রতিবেদনের শিরোনাম

2021 World Air Quality Report : Region & City PM2.5 Ranking

যেভাবে প্রতিবেদন তৈরি

২০২১ সালের Particulate Matter (PM2.5) বা বস্তুকণার ২.৫ মানের ওপর ভিত্তি করে বিশ্বের সবচেয়ে দূষিত বায়ু দেশ ও শহরের তালিকা প্রকাশ করে।

বায়ু দূষণে শীর্ষ ৫ দেশ

১. বাংলাদেশ, ২. শাদ, ৩. পাকিস্তান, ৪. তাজিকিস্তান ও ৫. ভারত।

শীর্ষ ৫ দূষিত রাজধানী

১. নয়াদিল্লি, ভারত; ২. ঢাকা, বাংলাদেশ; ৩. এন’জামেনা, শাদ; ৪. দুশানবে, তাজিকিস্তান ও ৫. মাস্কট, ওমান।

 

নন-ন্যাটো মিত্র কাতার

৩১ জানুয়ারি ২০২২ মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন হোয়াইট হাউসে কাতারের আমির শেখ তামিম বিন হামাদ আল থানির সাথে বৈঠককালে কাতারকে প্রধান নন-ন্যাটো মিত্র বা Major non-NATO ally (MNNA) করার প্রতিশ্রুতি দেন। এরপর ১০ মার্চ ২০২২ প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন আনুষ্ঠানিকভাবে MNNA ঘোষণা জারি করেন। কাতার এখন কুয়েত এবং বাহরাইনের পরে উপসাগরীয় অঞ্চলের তৃতীয় দেশ যারা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রধান প্রধান নন-ন্যাটো মিত্র (MNNA) মার্কিন নন-ন্যাটো মিত্রে পরিণত হলো। এর ফলে দেশটির সামরিক বাহিনীর অত্যাধুনিক প্রযুক্তি ও সরঞ্জাম সহায়তা এবং যৌথ প্রশিক্ষণের বিষয়ে অগ্রাধিকার পাবে। ২০১৭ সাল থেকে সৌদি আরব, আরব আমিরাত, বাহরাইন এবং মিসরের সঙ্গে বিরোধে জড়িয়ে পড়া কাতারেই মধ্যপ্রাচ্যের সবচেয়ে বড় মার্কিন ঘাঁটি।

প্রধান নন-ন্যাটো মিত্র (MNNA) মার্কিন সরকারের একটি মর্যাদা। ১৯৮৭ সালে MNNA মর্যাদা সৃষ্টি করা হয়। বর্তমানে যুক্তরাষ্ট্রের ২০টি প্রধান নন-ন্যাটো মিত্র দেশ রয়েছে। দেশগুলো— আফগানিস্তান
• আর্জেন্টিনা • ব্রাজিল • জাপান • অস্ট্রেলিয়া • কলম্বিয়া • জর্ডান • বাহরাইন • মিসর • ইসরায়েল • কুয়েত • মরক্কো • নিউজিল্যান্ড • পাকিস্তান • ফিলিপাইন • কাতার • দক্ষিণ কোরিয়া • থাইল্যান্ড • তিউনিসিয়া।

ন্যাটোর রেসপন্স ফোর্স

২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২২ প্রথমবারের মতো উত্তর আটলান্টিক নিরাপত্তা জোটের (NATO) রেসপন্স ফোর্সকে (NRF) সক্রিম করা হয়। ইউক্রেনে রুশ হামলার ঘটনায় এ বাহিনীকে সক্রিম করা হয়। তবে আক্রমণের জন্য নয়, প্রতিরক্ষামূলক পদক্ষে NRF হিসেবে এ সিদ্ধান্ত নেয় পশ্চিমাদের এ সামরিক জোট। ন্যাটোর সুপ্রিম অ্যালিট কমান্ডার জেনারেল টড ওল্টার্স বহুদেশীয় এ বাহিনীকে সক্রিয় করেন। এ বাহিনীতে রয়েছে স্থল, বিমান, সাগর ও স্পেশাল অপারেশন্স ফোর্সের সদস্যরা। জোটের সদস্যরা কোনো দেশকে রক্ষায় ন্যাটো সেনা মোতায়েন করে না।’ রাশিয়ার আক্রমণাত্মক পদক্ষেপের মোকাবিলায় পূর্ব ইউরোপের ন্যাটোর সদস রাষ্ট্রগুলোতে মার্কিন সেনা মোতায়েন করা হয়।

ভারত মহাসাগরীয় কোয়াডের যাত্রা

৯-১০ মার্চ ২০২২ মালদ্বীপের মালেতে কলম্বো সিকিউরিটি কনক্লেভের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টাদের দুই দিনব্যাপী বৈঠকের প্রথম দিনে মরিশাস সদস্য হিসেবে যোগ দেয়। এর ফলে এটি কার্যত ‘ভারত মহাসাগরীয় কোয়াডে পরিণত হয়। কলম্বো সিকিউরিটি কনক্লেভের অন্য ৩ সদস্য — ভারত, শ্রীলংকা ও মালদ্বীপ। এছাড়া বাংলাদেশ ও সিচেলেস পর্যবেক্ষক রাষ্ট্র। উল্লেখ্য, ২০১১ সালে শ্রীলংকার আগ্রহে এই কনক্লেভ গঠনের উদ্যোগ নেওয়া হয়। | প্রথম অবস্থায় মেরিটাইম নিরাপত্তার বিষয়ে সহযোগিতার কথা থাকলেও পরে ২০২০ সালে এবং নিরাপত্তাবিষয়ক সহযোগিতার জন্য কাজ করতে রাজি হয় সদস্য রাষ্ট্রগুলো।

৬ মিনিটে ইউরোপ থেকে এশিয়ায়

১৮ মার্চ ২০২২ তুরস্কে অবস্থিত দার্দানিলেস প্রণালিতে ৪.৬ কিলোমিটারের দীর্ঘ একটি সেতু উদ্বোধন করা হয় । এটিই বর্তমান বিশ্বের সর্ববৃহৎ ঝুলন্ত সেতু। এ সেতু ব্যবহার করে তুরস্কের এশীয় অঞ্চল থেকে ইউরোপীয় অঞ্চলে পৌছানো যাবে মাত্র ছয় মিনিটে। ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২২ সেতুটির নির্মাণ কাজ শেষ হয়। সেতুটি নির্মিত হওয়ার আগে দার্দানিলেস পার হতে নৌকা কিংবা ফেরি ব্যবহার করা হতো। সেতুর নির্মাণ কাজ শুরু হয় ১৮ মার্চ ২০১৭। সেতুর এক স্প্যান থেকে দ্বিতীয় স্প্যানের দূরত্ব ২০২৩ মিটার। ৩৩৪ মিটার লম্বা লাল-সাদা পিলারগুলো তুরস্কের জাতীয় পতাকাকে প্রতিফলিত করে। এই সেতু তুরস্কের ভিশন-২০২৩ রূপকল্পের অংশ। ১৯১৫ সালে প্রথম বিশ্বযুদ্ধকালীন সময়ে গ্যালিপলি উপদ্বীপে গ্যালিপুলি যুদ্ধের সাথে মিলিয়ে সেতুটির নামকরণ করা হয় ‘চানাক্কালে ১৯১৫ সেতু। তুরস্ক ও দক্ষিণ কোরিয়ান একটি কোম্পানি সেতুটি নির্মাণ করে। তুরস্কে এশিয়া ও ইউরোপকে সংযোগকারী ষষ্ঠ সেতু এটি।

তুরস্কের হাতে 5G যুদ্ধবিমান

২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২২ পঞ্চম প্রজন্মের যুদ্ধবিমান তৈরির প্রকল্প হাতে নেয় তুরস্ক ও পাকিস্তান। পঞ্চম প্রজন্মের ‘টিএআই টিএফ-এক্স’ ফাইটারের উন্নয়ন ও উৎপাদনের জন্য এ কর্মসূচি হাতে নেয় তুরস্ক। তুর্কি অ্যারোস্পেস ইন্ডাস্ট্রিসের নির্বাহী পরিচালক টেমেল কোটিল এবং পাকিস্তান বিমানবাহিনীর ভাইস মার্শাল রিজভান রিয়াজ বিষয়টি নিশ্চিত করেন। নতুন টিএফ- এক্স দু’টি দেশের বিমানবাহিনীর নীতি এবং অপারেশনাল প্রয়োজনীয়তা অনুসরণ করবে। টিএফ-এক্স তুরস্কের জন্য একটি সুযোগ। কারণ দেশটির বিদ্যমান নৌবহরকে যুক্তরাষ্ট্রের এফ-১৬ এর পরিবর্তে টিএফ-এক্স দিয়ে সাজাতে পারবে। রাশিয়ান এস-৪০০ এয়ার ডিফেন্স সিস্টেম কেনার পর তুরস্কে পঞ্চম প্রজন্মের এফ-৩৫ ফাইটার দিতে নারাজ যুক্তরাষ্ট্র। এ জন্য ২০২১ সালে তুরস্ক তার এফ-১৬ আপগ্রেড করার চেষ্টা করে। কিন্তু মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞার কথা উল্লেখ করে তা প্রত্যাখান করে। | পাকিস্তানের কাছেও মার্কিন এফ-১৬ ফাইটার জেট রয়েছে। কিন্তু সাম্প্রতিক বছরগুলোতে পাকিস্তান চীনা লাইসেন্সের অধীনে জেএফ-১৭ থান্ডার ফাইটার তৈরি করতে বেইজিংয়ের সাথে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করছে।

পারমাণবিক অস্ত্রের পক্ষে বেলারুশ

২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২২ বেলারুশের জনগণ পারমাণবিক অস্ত্র রাখার জন্য সংবিধান সংশোধনের পক্ষে রায় দেয়। এতে পক্ষে ৮৬.৬২% আর বিপক্ষে ১৩.৩৮% ভোট পড়ে। বেলারুশের এত দিনের পারমাণবিক অস্ত্রমুক্ত থাকার নীতি পরিবর্তনের লক্ষ্যে এ গণভোটের আয়োজন করা হয়। রাশিয়ার পারমাণবিক অস্ত্রব্যবস্থায় ‘বিশেষ সতর্কতা’ জারি করার দিনই বেলারুশের জনগণ পারমাণবিক অবস্থা পরিবর্তনের জন্য রায় দেয়। দেশটি রাশিয়ার মিত্র হিসেবে ইউক্রেনে বিশেষ অভিযানে সহায়তা করে সমালোচনার সম্মুখীন। বেলারুশ ইউক্রেনের উত্তরের প্রতিবেশী।

চীনের প্রতিরক্ষা ব্যয় বৃদ্ধি

৫ মার্চ ২০২২ চীনের পার্লামেন্ট ন্যাশনাল পিপলস কংগ্রেসে খসড়া প্রতিরক্ষা বাজেট প্রস্তাব পেশ করেন প্রধানমন্ত্রী লি কেকিয়াং। ২০২২ অর্থবছরের জন্য ১.৪৫ ট্রিলিয়ন ইউয়ান (২৩০ বিলিয়ন ডলার) প্রতিরক্ষা বাজেটের প্রস্তাব দেয় চীন সরকার। যা গত বছরের তুলনায় ৭.১% বেশি। ২০২১ সালে দেশটির প্রতিরক্ষা বাজেট ছিল ২০৯ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। ২০২২ সালে ভারতের প্রতিরক্ষা বাজেট নির্ধারিত হয় ৭০ বিলিয়ন ডলার। এবার বাড়ানোর ফলে ভারতের চেয়ে চীনের প্রতিরক্ষা বাজেট এখন তিন গুণ বেশি। ২০২১ সালে চীনের প্রতিরক্ষা ব্যয় প্রথমবারের মতো ২০০ বিলিয়ন ডলার অতিক্রম করে। দেশের সার্বভৌমত্ব, নিরাপত্তা ও উন্নয়নের স্বার্থ রক্ষায় সেনাবাহিনীকে একই সঙ্গে অটল ও নমনীয় থেকে সামরিক সংগ্রামের সমাধান করতে হবে। পূর্ব লাদাখে ভারতের সঙ্গে অচলাবস্থা এবং যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে ক্রমবর্ধমান সামরিক ও রাজনৈতিক উত্তেজনার মধ্যে চীনের প্রতিরক্ষা বাজেট বাড়ানোর ঘোষণা আসে। যুক্তরাষ্ট্রের পর বিশ্বে প্রতিরক্ষা খাতে সবচেয়ে বেশি ব্যয় করা দেশ চীন।

অস্ট্রেলিয়ার পারমাণবিক ঘাঁটি নির্মাণ

পারমাণবিক সাবমেরিন ঘাঁটি নির্মাণ করছে অস্ট্রেলিয়া। ৭ মার্চ ২০২২ প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন ঘোষণা দেন দেশটির পূর্বাঞ্চলে এটি নির্মাণ করা হবে। ৭৪০ কোটি ডলার ব্যয়ে প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করা হবে। দেশটির প্রতিরক্ষা প্যাসিফিক অঞ্চলে চীনের কর্মকাণ্ড পর্যালোচনা করাই এ প্রকল্পের মূল উদ্দেশ্য। ইউক্রেনে রাশিয়ার হামলার মধ্যেই অস্ট্রেলিয়া সরকার এ সিদ্ধান্ত নেয়। এর আগে দেশটি মস্কোর ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপেরও ঘোষণা দেয়। ল ইনস্টিটিউট থিংক ট্যাংকের আয়োজিত এক অনলাইন আলোচনায় মরিসন এ পরিকল্পনার কথা জানান। অকাস চুক্তির আওতায় যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্য অস্ট্রেলিয়াকে সাবমেরিন প্রযুক্তি সরবরাহ করবে। পারমাণবিক সাবমেরিন ব্যবস্থা অর্জনসহ পূর্ব উপকূলে দ্বিতীয় ঘাঁটি নির্মাণে সরকার প্রতিজ্ঞাবদ্ধ, যা কৌশলগত প্রতিরোধ সক্ষমতা বাড়াবে।

বিশ্বের বৃহত্তম হাইব্রিড বিদ্যুৎ প্রকল্প

২০৫০ সালের মধ্যে থাইল্যান্ড কার্বন-নিরপেক্ষ দেশ হিসেবে আবির্ভূত হতে চায়। সে লক্ষ্যে দেশটি এখন পরিবেশবান্ধব বিদ্যুৎ উৎপাদনের দিকে ঝুঁকছে। উত্তর-পূর্ব থাইল্যান্ডের একটি জলাধারে ভাসমান বিশাল সৌর প্যানেল প্রকল্প তারই প্রতীক। থাইল্যান্ডের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশ উবন রাতচাথানির সিরিন্ধর্ন বাঁধ প্রকল্পটি ইতোমধ্যে আলোচনায় এসেছে। ভাসমান সৌরবিদ্যুৎ প্রকল্পটিতে ৭,২০,০০০ বর্গমিটারের বেশি জায়গাজুড়ে ছড়িয়ে রয়েছে সৌর প্যানেল। এটি মূলত হাইব্রিড সিস্টেম, যা দিনের বেলা সূর্যের আলোকে বিদ্যুৎ শক্তিতে রূপান্তরিত করে আর রাতের বেলা জলবিদ্যুৎ তৈরির কাজ করে। বাঁধ কর্তৃপক্ষ একে বিশ্বের বৃহত্তম ভাসমান জল-সৌর প্রকল্প বলছে। থাইল্যান্ড কর্তৃপক্ষ ২০৩৭ সাল নাগাদ এ ধরনের ১৫টি প্রকল্প বাস্তবায়ন করবে। সিরিন্ধর্ন বাঁধ প্রকল্পটিতে ২০২১ সালের অক্টোবর মাস থেকে কার্যক্রম শুরু হয়। এতে ১,৪৪,০০০ সৌরকোষ রয়েছে, যা ৭০টি ফুটবল মাঠের সমান। এখান থেকে ৪৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদিত হয়। হাইব্রিড বিদ্যুৎ প্রকল্পের লক্ষ্য প্রতিবছর ৪৭,০০০ টন কার্বন ডাই-অক্সাইড নির্গমন হ্রাস করা এবং ২০৩৭ সাল নাগাদ ৩০% পরিবেশবান্ধব বিদ্যুৎ উৎপাদনের বিষয়টি নিশ্চিত করা।

ইউক্রেনে রুশ সামরিক অভিযান

নব্বইয়ের দশকে সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়ন থেকে আলাদা হয়ে যাওয়া রাষ্ট্রগুলোর মধ্যে অন্যতম ইউক্রেন। ইউক্রেনের অধিবাসীদের একটা বিরাট অংশ রুশ বংশোদ্ভূত। দু’দেশের জনগণ কখনোই ভাবেনি যে তাদের মধ্যে এমন বৈরিতা তৈরি হবে। শক্তিধর রাশিয়া ইউক্রেনের বিপক্ষে অবস্থান নেবে। ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১ রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের নির্দেশে স্থল, আকাশ ও জলপথে ইউক্রেনে হামলা শুরু করে রুশ সেনাবাহিনী । দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর এটাই ইউরোপের কোনো দেশে সবচেয়ে বড় হামলা।

ইউক্রেনের জন্ম

রুশ বিপ্লবের বহু আগে ইউক্রেনে জারের শাসন চলাকালীন ইউক্রেনীয়দের জাতীয়তাবাদ এবং স্বতন্ত্র পরিচয়ের রাজনীতি রাশিয়ায় নানা সমস্যা তৈরি করে। ১৯০৩ সালে রাশিয়ার সোশ্যাল ডেমোক্র্যাটরা মেনশেভিক ও বলশেভিক-এ দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে পড়ে। ১৯০৫ সালে রাশিয়ায় প্রথম যে বিপ্লব ঘটে, তার ফলে রুশ জার দ্বিতীয় নিকোলাইয়ের পতন ঘটে। এরপর বলশেভিক এবং অক্টোবর বিপ্লবের সমন্বয়ে ১৯১৭ সালে আরেকটি বিপ্লব ঘটে, যার নামও রুশ বিপ্লব (Russian Revolution)। এই বিপ্লবের মধ্যেই ১০ জুন ১৯১৭ ক্রিমিয়াসহ ইউক্রেনের এক বড় অংশ রাশিয়া থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে স্বাধীন ইউক্রেন প্রজাতন্ত্রের ঘোষণা দেয়। ২৫ অক্টোবর ১৯১৭ (পুরোনো বর্ষপঞ্জির হিসেবে) আর নতুন গ্রেগোরিয়ান নিয়মে ৭ নভেম্বর ভ্লাদিমির ইলিচ লেনিনের নেতৃত্বে বলশেভিক পার্টি বিপ্লবের মাধ্যমে রাশিয়ায় জার শাসনের অবসান হয়। তার নেতৃত্বাধীন সোভিয়েত সরকার স্বাধীন ইউক্রেন গঠনের চেষ্টাকে দমন করে। ইউক্রেনের বেশির ভাগ ভূখণ্ডই সোভিয়েত ইউনিয়নের অন্তর্ভুক্ত হয়ে যায়। অন্যদিকে পশ্চিম ইউক্রেনের কিছু অংশ পোল্যান্ড, চেকোশ্লোভাকিয়া আর রোমানিয়ার মধ্যে ভাগাভাগি করা হয়। ৩০ ডিসেম্বর ১৯২২ ইউক্রেন সোভিয়েত ইউনিয়নের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য হিসেবে অন্তর্ভুক্ত হয়। অবশেষে সাত দশকেরও বেশি সময় পর সোভিয়েত ইউনিয়ন ভেঙে যাবার মধ্যে দিয়ে ১৯৯১ সালে জন্ম হয় স্বাধীন ইউক্রেন রাষ্ট্রের। ২৪ আগস্ট ইউক্রেন আনুষ্ঠানিকভাবে স্বাধীনতা ঘোষণা করে। ১ ডিসেম্বর ১৯৯১ অনুষ্ঠিত এক গণভোটে জনগণ স্বাধীনতার পক্ষে রায় দেয়।

সংকটের উৎস

ইউক্রেনে দু’টি রাজনৈতিক ধারা প্রবল । একটি পশ্চিম ইউরোপের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ হতে চায়। তারা ইউরোপীয় ইউনিয়নে (EU) যোগ দেওয়ার পাশাপাশি পশ্চিমা সামরিক জোট ন্যাটোর সদস্য হতে আগ্রহী। অন্যদিকে, অপর ধারাটি রুশপন্থী। তারা রাশিয়ার বলয়ে থাকতে চায় । ইউক্রেনের জনসংখ্যার একটা বড় অংশ রুশভাষী। ইউক্রেনের সাথে রাশিয়ার দ্বন্দ্বের প্রধান কারণ North Atlantic Treaty Organization (NATO), যা গঠন করা হয় ৪ এপ্রিল ১৯৪৯। সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়নসহ সমাজতান্ত্রিক দুনিয়ার বিরুদ্ধের একটি সামরিক জোট বন্যাটো। অন্যদিকে স্নায়ুযুদ্ধ চলাকালীন ইউরোপের আটটি সমাজতান্ত্রিক রাষ্ট্র নিয়ে ১৪ মে ১৯৫৫ গঠিত হয় আরেকটি বসামরিক জোট ওয়ারশ প্যাক্ট (Warsaw Pact)। ১৯৯০-এর দশকের শুরুতে সোভিয়েত ইউনিয়ন ভেঙে যাওয়ার পর সোভিয়েত বলয়ভুক্ত সামরিক জোট ওয়ারশ ১ জুলাই ১৯৯১ ভেঙে যায়। পোল্যান্ডের ওয়ারশ-এ বসে সামরিক জোট ওয়ারশ প্যাক্ট করা হয় সেই পোল্যান্ডই এখন ন্যাটোর সদস্য। রাশিয়া ন্যাটোতে অন্তর্ভুক্ত হতে চাইলে অন্য সদস্যরা ভেটো দেয়। অথচ ওয়ারশতে ছিল এমন অনেক দেশকে ন্যাটোর সদস্য করা হয়। ১২ মার্চ ১৯৯৯ চেক প্রজাতন্ত্র, হাঙ্গেরি ও পোল্যান্ড ন্যাটোতে যোগ দেয়। ২৯ মার্চ ২০০৪ তাদের পথ অনুসরণ করে বুলগেরিয়া, এস্তোনিয়া, লাটভিয়া, লিথুয়ানিয়া, রোমানিয়া ও স্লোভাকিয়া। ১ এপ্রিল ২০০৯ যোগ দেয় আলবেনিয়া। এ দেশগুলো একসময় সোভিয়েত ইউনিয়নের অংশ ছিল এবং ওয়ারশ সামরিক জোটের সদস্যও। জর্জিয়া, মলদোভা এবং ইউক্রেনও ন্যাটো বা ইউরোপীয় ইউনিয়নে (EU) যোগ দিতে চায় । কিন্তু রাশিয়া এ ব্যাপারে কঠোর থাকায় দেশগুলোর যোগ দেওয়া হয়নি। এ দেশগুলোর যেকোনো একটি দেশ বিশেষ করে ইউক্রেন যদি কোনোভাবেই ন্যাটো বা ইউরোপীয় ইউনিয়নে যোগ দেয় তাহলে রাশিয়ার সাথে যুদ্ধের স্ফুলিঙ্গ হিসেবে কাজ করতে পারে । রাশিয়ার বর্তমান প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন মনে করেন, পশ্চিমা শক্তি আসলে ন্যাটো জোটকে ব্যবহার করে চারদিক থেকে রাশিয়াকে ঘিরে ফেলছে।

আর্থিক লেনদেনের নেটওয়ার্ক SWIFT

SWIFT কী?
SWIFT’র পূর্ণরূপ Society for Worldwide Interbank Financial Telecommunication I এটি হলো দ্রুত ও নিরাপদে আন্তর্জাতিক লেনদেনের প্রধান ব্যবস্থা। SWIFT মূলত একটি তাৎক্ষণিক মেসেজিং ব্যবস্থা, যা কোনো লেনদেনের ব্যাপারে গ্রাহককে তৎক্ষণাৎ জানিয়ে দেয়। SWIFT নেটওয়ার্ক দিয়ে সরাসরি অর্থ প্রেরণ করা যায় না, এটা শুধু অনলাইনে পেমেন্ট অর্ডার প্রেরণ করে। বিশ্বের অধিকাংশ ব্যাংক নিজেদের মধ্যকার বার্তা আদান-প্রদানের জন্য SWIFT নেটওয়ার্ক ব্যবহার করে। একটি ব্যাংক তাদের SWIFT নেটওয়ার্ক এ সংযুক্ত অন্য একটি ব্যাংককে। অর্থ পরিশোধের অনুরোধ পাঠায় এবং সংশ্লিষ্ট ব্যাংক সেই আদেশ গ্রহণ করে কাজ করে। প্রতিষ্ঠানটি বিশ্বব্যাপী খুবই গুরুত্বপূর্ণ অর্থনৈতিক ভূমিকা রাখলেও কোনো দেশের ওপর অবরোধ আরোপের আইনি ক্ষমতা নেই। SWIFT গঠিত হয় ৩ মে ১৯৭৩ এবং এর সদর দপ্তর বেলজিয়ামের লা হয়ে। যদিও SWIFT একটি নিরাপদ উপায়ে আর্থিক বার্তা পরিবহন করে; কিন্তু এটি তার সদস্যদের জন্য অ্যাকাউন্ট বা নিষ্পত্তির কাজ করে না।

নিয়ন্ত্রক

SWIFT সৃষ্টি হয় আমেরিকান ও ইউরোপিয়ান ব্যাংকসমূহের উদ্যোগে। বিশ্বের ২০০টির বেশি দেশ ও অঞ্চলের ১১,০০০ ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান SWIFT’র সঙ্গে যুক্ত। মার্কিন ফেডারেল রিজার্ভ সিস্টেম, ইউরোপীয় কেন্দ্রীয় ব্যাংক (ECB) এবং ব্যাংক অব ইংল্যান্ডসহ বিশ্বের বড় বড় কেন্দ্রীয় ব্যাংকের সাথে মিলে বেলজিয়ামের কেন্দ্রীয় ব্যাংক ন্যাশনাল ব্যাংক অব বেলজিয়াম SWIFT’র কাজকর্ম তদারকি করে থাকে। কারো ওপর নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার ব্যাপারে SWIFT’র কোনো প্রভাব থাকে না, বরং নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নির্ভর করে কোনো দেশের কোন দেশের সরকারের ওপর।

রাশিয়াকে বহিষ্কার

২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২২ রাশিয়াকে অর্থনৈতিক চাপে ফেলার জন্য SWIFT থেকে বাদ দেওয়ার ঘোষণা দেয় যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ও । ইউরোপীয় ইউনিয়ন। তবে SWIFT থেকে রাশিয়াকে বাদ দেওয়ার । চিন্তা নতুন নয়। ২০১৪ সালে ক্রিমিয়া দখলের জন্য SWIFT থেকে রাশিয়াকে বহিষ্কারের হুমকি দেওয়া হয়। তখন রাশিয়ার সাবেক অর্থমন্ত্রী আলেক্সি কুদিন ভবিষ্যদ্বাণী করেন যে, এ ধরনের | পদক্ষেপের ফলে রাশিয়ার জিডিপি ৫% সংকুচিত হতে পারে। SWIFT থেকে রাশিয়ার যে ব্যাংকগুলো বিচ্ছিন্ন থাকবে, সে ব্যাংকগুলোর বিশ্বব্যাপী কর্মকাণ্ড পরিচালনা ক্ষতিগ্রস্ত হবে। এই নিষেধাজ্ঞার উদ্দেশ্য হচ্ছে রুশ কোম্পানিসমূহ যাতে SWIFTY মাধ্যমে স্বাভাবিক সময়ের মতো নির্ঝঞ্ঝাটে এবং তাৎক্ষণিক লেনদেন পরিচালনা করতে না পারে। এর ফলে এখন রাশিয়ার জ্বালানি এবং কৃষিপণ্য বিক্রির অর্থ আদায় মারাত্মকভাবে ব্যাহত হবে। ব্যাংকগুলোকে এখন সরাসরি একে অপরের সাথে যোগাযোগ করতে হবে। এতে সময়ক্ষেপণ হবে এবং বাড়তি খরচ গুনতে হবে, যা শেষ পর্যন্ত রুশ সরকারের রাজস্ব আয় হ্রাস পাবে।

SWIFT’র বিকল্প

২০১৪ সালে হুমকির ফলেই রাশিয়া SWIFT’র বিকল্প হিসেবে Sistema Peredachi Finansovykh Soobscheniy (SPFS) নামে আর্থিক বার্তা স্থানান্তর করার একটি বিকল্প সিস্টেম স্থাপন করে। রাশিয়া ও চীনের মধ্যে যেন বাধামুক্ত বাণিজ্য হতে পারে তা নিশ্চিত করার জন্য ২০১৫ সালে চীন একটি Cross-Border Interbank Payment System (CIPS) চালু করে। এর মাধ্যমেই বর্তমানে দেশটির স্থানীয় ব্যাংকগুলো তাদের ২০ শতাংশ অভ্যন্তরীণ লেনদেন করছে। চীনের CIPS অবশ্য রাশিয়াকে একটি লাইফলাইন দিতে পারে এবং ডি-ডলারাইজেশনকে ত্বরান্বিত করতে পারে। CIPS-এ মাত্র ৮০টি বিদেশি ব্যাংক অন্তর্ভুক্ত। SWIFT’র বিকল্প হিসেবে CIPS-কে এখনো অনেক পথ পাড়ি দিতে হবে। আন্তর্জাতিক আর্থিক বাজারে রেনমিনবির অংশ এখনো খুবই সামান্য। বিশ্বব্যাপী অর্থ প্রদানের ২ শতাংশেরও কম, যা মার্কিন ডলারের ৪০ শতাংশ শেয়ার এবং ইউরো, ব্রিটিশ পাউন্ড ও জাপানি ইয়েনের তুলনায় অনেক পিছিয়ে। ফলে CIPS পেমেন্ট সিস্টেমটি এখনো খুব ছোট, SWIFT’র প্রায় ০.৩%। পরমাণু কর্মসূচির কারণে ২০১২ সালে ইরানের ওপর SWIFT’র নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়। ফল হিসেবে দেশটির তেল রপ্তানি থেকে আয় অর্ধেক কমে যায় এবং বৈদেশিক বাণিজ্যের ৩০ শতাংশ হারায়। এরপর ইউরোপীয় ইউনিয়ন (EU) ২৯ নভেম্বর ২০১৯ SWIFT’র বিকল্প হিসেবে Support of Trade Exchanges (INSTEX) চালু করে। INSTEX বর্তমানে মানবিক বাণিজ্যের মধ্যে সীমাবদ্ধ, যা মার্কিন নিষেধাজ্ঞার মধ্যেও অনুমোদিত।

Leave a Reply